সোমবার, ১৫ Jul ২০২৪, ০৮:১৭ পূর্বাহ্ন

Notice :
সারা বাংলাদেশ ব্যাপী বিভিন্ন জেলা প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে..........চট্টগ্রাম অফিস: সৈয়দ নূর বিল্ডিং , এম এ আজিজ রোড, সিমেন্ট ক্রসিং, দক্ষিণ হালিশহর, চট্টগ্রাম।মোবাইল নাম্বারঃ ০১৯১১৫৩৩৩০৮, ০১৭১১৪৬৭৫৩৭, E-mail: gsmripon@gmail.com
সংবাদ শিরোনাম:
লিঙ্গ বৈচিত্রময় হিজড়া জনগোষ্ঠীর নিরাপদ, সুষ্ঠু ও সুন্দর শিক্ষা ব্যবস্থাই আমাদের লক্ষ্য পবিত্র আশুরা ২০২৪ উদ্‌যাপন উপলক্ষ্যে আইনশৃঙ্খলা সংক্রান্ত সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত। ইপিজেড থানার অভিযানে অজ্ঞান পার্টির তিন সদস্য গ্রেফতার। আমার দরজা সবার জন্য সবসময় খোলা “মিট দ্য প্রেস” এ সিএমপি কমিশনার। ৪০০ কেজি সামুদ্রিক মাছ জব্দ ও ১লক্ষ ১৬ হাজার ৫০০ টাকা নিলাম আবুল কালাম হত্যাকাণ্ডের ক্লুলেস মামলার পলাতক আসামি আরিফ হোসেন’কে ৭২ ঘন্টার মধ্যে গ্রেফতার করেছে র‍্যাব-৭ ৮০০ কেজি সামুদ্রিক মাছ জব্দ ও ১লক্ষ ৭০ হাজার টাকা নিলাম মোবাইলে খেলতে দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে ৬ বছরের শিশু’কে ধর্ষণ আটক -১ র‍্যাব-৭ ও র‍্যাব-১১ বেসরকারী পর্যায়ে চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতাল চিকিৎসা সেবায় গুরুত্বপূর্ণ অবদান রেখে চলেছে – ডাঃ সামন্ত লাল সেন- স্বাস্থ্য মন্ত্রী নীলফামারীতে সড়ক পারাপারে শিশুর নির্মম মৃত্যু,,!!

অভয়নগরে ই,জি,পি,পি প্রকল্পে চরম অনিয়ম, ইউএনও বরাবর লিখিত অভিযোগ।

অভয়নগরে ই,জি,পি,পি প্রকল্পে চরম অনিয়ম, ইউএনও বরাবর লিখিত অভিযোগ

 

কে.এম আলীঃ অভয়নগর নওয়াপাড়া থেকে

যশোরের অভয়নগরে অতি- দরিদ্রদের জন্য কর্ম সংস্থান কর্মসুচী (ই,জি,পি,পি) প্রকল্পের কাজে চরম অনিয়ম ও শ্রমিকদের স্বাক্ষর জালিয়াতি মাধ্যমে অগ্রণী ব্যাংক থেকে টাকা উত্তলন ও আত্নসাৎ’র অভিযোগ তুলে গত ২০ শে এপ্রিল (মঙ্গলবার) উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর লিখিত অভিযোগ করেছে ৫ নং শ্রীধরপুর ইউপি চেয়ারম্যান মোহাম্মদ আলী মোল্যা।

অভিযোগ ও স্থানীয়দের সুত্রে জানা যায়, ৫ নং শ্রীধরপুর ইউনিয়নের ১,৪,৬,৭,৮ ও ৯ নং ওয়ার্ডের অতি- দরিদ্রদের জন্য কর্ম সংস্থান কর্মসূচী (ই,জি,পি,পি) প্রকল্পে ছয়টি ওয়ার্ডে দীর্ঘদিন যাবত প্রকল্পের নাম মাত্র কয়েক জন শ্রমিক কাজ করে তবে ইউপি সদস্যগণ সকল শ্রমিকদের নাম হাজিরা খাতায় উঠায় এবং অনুপস্থিত শ্রমিকদের স্বাক্ষর জাল করিয়া ব্যাংক থেকে টাকা আত্নসাৎ করে। প্রত্যেক পি. আই.সি এর আওতায় ২৫,৩০,৩৫ জন শ্রমিকের নামের তালিকা থাকলেও প্রতিটি ওয়ার্ডে ৭ – ১৫ জন শ্রমিককে কাজ করতে দেখা যায়। তালিকা ভুক্তদের মধ্যে অনেকে জানেনা সে একজন শ্রমিক, তবে তার নামে ব্যাংকে টাকা জমা ও উত্তলন হয়। গত চার বছরের বেশি সময় ধরে ইউপি সদস্যগন অনিয়ম- দুর্নীতি ও স্বজনপ্রীতি করে আসছে যা ই,জি,পি,পি প্রকল্পের নিয়ম বহির্ভূত। প্রকল্পের কাজে নাম থাকা কয়েকজন বলেন, প্রকল্পের কাজে আমাদের নাম আছে তা আমরা জানিনা। আমাদের নামে টাকা জমা হয়, উত্তলনও হয় সেটা আমরা আমাদের মোবাইলে ম্যাসেজ এর মাধ্যমে জানতে পারি তবে টাকা উত্তলনের সময় আমাদের কোন সাক্ষর ছাড়া কিভাবে টাকা উত্তলন হয় এটা আমাদের বোধগম্য নয়। এ টাকা আত্মসাৎ ‘র পেছনে ব্যাংক কর্মকর্তাদেরও যোগসাজশ রয়েছে বলে অভিযোগ করেন তারা।

সাক্ষর জালিয়াতির বিষয়ে অগ্রণী ব্যাংক নওয়াপাড়া শাখার ম্যানেজার তাপস বিশ্বাসের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ব্যাংক কর্মকর্তা জিয়া এ বিষয়ে বলতে পারবে।

এ বিষয়ে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা (অতিরিক্ত) মোঃ রিজিবুল ইসলাম বলেন, নির্বাচিত চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যদের দন্দের কারনে প্রকল্পের কাজটি বন্ধ আছে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ আমিনুর রহমান বলেন, অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুক ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2023 Channel69tv.net.bd
Design & Development BY ServerNeed.com